মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

উপজেলা প্রশাসনের পটভূমি

ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানীর শাসন আমলে ১৮৪৪ খৃস্টাব্দের ১০ অক্টোবর এক সরকারী আদেশ জারী করা হয় যে,‘‘এখন থেকে সরকারী অফিসে ইংরেজী ভাষায় অভিজ্ঞ লোক নিয়োগ করা হবে।’’ এর আগে এই উপমহাদেশের রাষ্ট্রভাষা ছিল ফারসী ।এ ঐতিহাসিক সত্যের নিরিখে দেখা যায় যে,পলাশী যুদ্ধের পর দীর্ঘ ৮৭বছর প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের কর্তাব্যক্তি স্যার জেমস ওয়েস্টল্যান্ড আছাশটি খনিত পুকুর সমৃদ্ধ এ এলাকাটিকে তালাব এরিয়া( তালাব এলাকা) আখ্যা দেন । পরবর্তীকালে ভূমি জরিপ বিভাগের কর্মকর্তাদের অসাবধানতায় ফরাসী শব্দ তালাব থেকে ‘ব’ অক্ষরটি বিচ্যুত হয়ে তা ‘তালা’য় রুপানি-রিত হয় । অপরদিকে একটি অসমর্থিত জনসমর্থণের উপর ভিত্তি করে ১৯৯১ সালের আদমশুমারীর রিপোর্টে উল্লেখ করা হয় যে, কপোতাক্ষ নদে কোন এক সময় কোন এক মৎস্যজীবীর জালে একটি ভারী লোহার সিন্দুক উঠে আসে । এই সিন্দুকে একটি বিস্ময়কর তালা লাগানো ছিল । আর সেই তালাটিকে বর্তমান থানা সদরের নদীর তীরে রাখা হয়। কিন' ইতিহাস সাক্ষ্য দেয় যে, তালা বাজারে থানা প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯১৩ সালে। এর মধ্যে থানা সদর ছিল মাগুরা বাজারে এবং তা মাগুরা নামে প্রচলিত হয় ১৯১৩ সালে। অথচ ১৯১৩ সালের আগে তালা বাজারের অন্য কোন নাম ছিল এমন কোন প্রমাণও পাওয়া যায় না। কাজেই স্যার জেমস ওয়েস্টল্যান্ড এর দেয়া নামই ঐতিহাসিক সত্য প্রকাশ করে এবং এটাই যুক্তিসঙ্গত ।